নোটিশ

সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজে ৯ম শ্রেণীর ভর্তির বিজ্ঞপ্তি

বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড অধীনে ভোকেশনাল এসএসসি ও দাখিল ২০২৩ শিক্ষাবর্ষে নবম শ্রেণিতে সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজ এবং সরকারি/বেসরকারি বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী ভর্তি নির্দেশিকা প্রকাশ করা হয়েছে।

ভোকেশনাল এসএসসি ও দাখিল ভর্তির নিয়মাবলী:

১. ভোকেশনাল এসএসসি এবং দাখিল শিক্ষাক্রমে নবম শ্রেণিতে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীরা দেশের যেকোনো শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট / জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট / অষ্টম শ্রেণি উত্তীর্ণরা ২০২৩ সালের শিক্ষাবর্ষে ভর্তির জন্য আবেদন করতে পারবে।

২. সরকারি প্রতিষ্ঠানের ১ম শিফটে ভর্তিচ্ছু প্রার্থীদের ২০১৭ সালের বা পরবর্তী সময়ে জেএসসি/জেডিসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হবে। সরকারি প্রতিষ্ঠানের ২য় শিফট এবং বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের জন্য জেএসসি/জেডিসি/অষ্টম শ্রেণি উত্তীর্ণনের পাশের সন শিথিল যোগ্য।

৩. ২০২৩ শিক্ষাবর্ষে নবম শ্রেণিতে ভর্তির জন্য প্রতিষ্ঠান প্রধানগণ নিজ দায়িত্বে বোর্ডের কেন্দ্রীয় ভর্তি কমিটি কর্তৃক প্রণীত নির্দেশিকা অনুসরণপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

৪. ভর্তিচ্ছু প্রার্থীদেরকে নির্ধারিত ফরমের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে।

আরও পড়ুন: কোন টেকনোলজিতে পড়বেন?

আরও পড়ুন: ডিপ্লোমা-ইন-ইঞ্জিনিয়ারিং কেন পড়বেন?

আরও পড়ুন: দেশের সেরা দশটি সরকারি পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট

৫. পছন্দের প্রতিষ্ঠান হতে অফেরতযোগ্য ১২০.০০ (একশত বিশ) টাকার বিনিময়ে বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড প্রণীত ভর্তি নির্দেশিকা ও ভর্তির আবেদনপত্র/ফরম সংগ্রহ করতে হবে।

৬. শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে চালুকৃত ট্রেডসমূহে নৰম শ্রেণিতে ট্রেডে শিক্ষার্থী ভর্তি করতে হবে।

৭. লটারির মাধ্যমে চূড়ান্ত ট্রেডে ভর্তি তালিকা তৈরি করতে হবে।

৮. প্রার্থীকে ভর্তির আবেদনপত্রের সাথে জেএসসি/জেডিসি/অষ্টম শ্রেণি পাশের নম্বরপত্রের সত্যায়িত অনলাইন নম্বরপত্রের কপি, ০২ (দুই) কপি পাসপোর্ট সাইজের সত্যায়িত রঙ্গিন ছবি এবং ফরম সংগ্রহের সময় প্রাপ্ত রশিদ সংযুক্ত করতে হবে।

৯. মুক্তিযোদ্ধাদের সন্তান/সন্তানদের সন্তান নূন্যতম যোগ্যতা থাকা সাপেক্ষে ভর্তির জন্য শূন্য আসনের ৫% কোটা সংরক্ষিত থাকবে। শিক্ষা মন্ত্রণালয়, কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর, বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড এবং স্ব স্ব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে কর্মরত ব্যাক্তিরা ২% আসনে মেধানুযায়ী পছন্দক্রমে শিক্ষার্থী ভর্তি করা যাবে।

এছাড়া বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন শিক্ষার্থীদের ভর্তির ক্ষেত্রে কোটা সংরক্ষিত থাকবে। তবে এ ক্ষেত্রে প্রমাণস্বরূপ যথাযথ কর্তৃপক্ষের প্রত্যয়ন দাখিল করতে হবে।

মেয়েদের ২০% ও ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর জন্য অগ্রাধিকার প্রদান করতে হবে।  তবে সংরক্ষিত কোটায় যোগ্য আবেদনকারী না পাওয়া গেলে মেধা তালিকা থেকে তা পূরণ করা।

DIPLOMA NEWS এর Campus Ambassador হতে ক্লিক করুন

১০. প্রার্থীকে রেজিস্ট্রেশনের সময় জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট / জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট/অষ্টম শ্রেণি পাশের মূল নম্বরপত্র সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানে সংরক্ষণের জন্য জমা দিতে হবে। নম্বরপত্রের মূলকপি শিক্ষাক্রমের সর্বশেষ পরীক্ষা পর্যন্ত সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানে জমা থাকবে। এ সময়ের মধ্যে কোন প্রার্থী তা ফেরত চাইলে তার ভর্তি বাতিল করে ফেরত দেয়া হবে।

১১. চূড়ান্তভাবে নির্বাচিত প্রার্থীকে যাবতীয় ফি প্রদান করে নির্দিষ্ট তারিখের মধ্যে প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হতে হবে।

১২. ভোকেশনাল এসএসসি ও দাখিল শিক্ষাক্রমে অধ্যয়নরত কোন শিক্ষার্থী একই শিক্ষাক্রমে পুনরায় ভর্তি হতে পারবে না। এছাড়া একই শিক্ষাবর্ষে একজন শিক্ষার্থী একাধিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে  ভর্তি হতে পারবে না।

আপনাদের ক্যাম্পাসের তথ্য  খবর প্রকাশ করতে এই ঠিকনায় মেইল করুন-newsdiploma@gmail.com

Diploma News

কারিগরি ও ডিপ্লোমা শিক্ষার্থীদের সেরা পোর্টাল DIPLOMA NEWS

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button